কলকাতা 

“মুকুল রায়ের সঙ্গে আমার দেখা করা ভুল হয়েছিল , আমি তৃণমূলে আছি ; তৃণমূলেই থাকব “: সব্যসাচী দত্ত ; “দলে সন্দেহের পরিবেশ তৈরি করতে চাইছে। বিজেপি-র পরিকল্পনা সফল হবে না ” : ফিরহাদ হাকিম

শেয়ার করুন
  • 60
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : মুকুল রায়ের সঙ্গে  দেখা করা ও কথা বলা ভুল হয়েছে বলে স্বীকার করেলেন বিধাননগরের মেয়র ও বিধায়ক সব্যসাচী দত্ত। তিনি অবশ্য এদিন বলেন , “ফোন করে নিজেই আসতে চান মুকুল রায়। আমার স্ত্রীর সঙ্গে ওঁর সুসম্পর্ক। ওঁর সঙ্গে ক্রিকেট নিয়ে কথা হয়েছে। তৃণমূলে আছি তৃণমূলেই থাকব। মুকুলের প্ল্যানিং ছিল এসব।”

তিনি দলত্যাগের সম্ভাবনাকে উড়িয়ে দিয়ে বলেন, “আমার দলের সহকর্মী, সহযোদ্ধারা আমার বিষয়ে জানেন। দলে ছিলাম, আছি, থাকব।” তাহলে মুকুল রায় কেন এসেছিলেন? সে প্রসঙ্গে সব্যসাচী বলেন, “আমার বাড়িতে কে আসবে তা তো আমি জানি না। আর কেউ ঢুকতে চাইলে আমি কি ঢুকতে দেব না?” তাঁর দাবি, মুকুল রায় বিরাট কোহলির খেলা নিয়ে কথা বলছিলেন।

তারপর বলেন, “কী রে কেমন আছিস? লুচি ও আলুর দম তৈরি করতে বললেন। আমার সঙ্গে খেলা নিয়ে কথা হয়েছে। নানুর, কেশপুর নিয়ে কথা হয়েছে। তারপর খেয়ে বেরিয়ে গেছেন।”

শুক্রবার সব্যসাচী দত্তর সঙ্গে দেখা করেন মুকুল রায়। বাড়ি থেকে বেরিয়ে মুকুল বলেন, “সব্যসাচী পৌরনিগমের মেয়র। আমি দেখা করতে এসেছি। তার মানেই কি বিজেপিতে আসা ? ওর বাড়িতে লুচি-তরকারি খেলাম। বিজেপিতে যোগদানের বিষয়ে কিছু বলিনি। পারিবারিক বন্ধুকে এসব বলতে আছে?” তারপরই সব্যসাচী দত্তর বিজেপিতে যোগদান নিয়ে জল্পনা তৈরি হয়।

পরদিনই লোকসভা ভোটের রণনীতি সাজাতে দলের কোর কমিটির বৈঠক অনুপস্থিত ছিলেন তৃণমূল নেতা সব্যসাচী দত্ত। অনুপস্থিতির কারণ নিয়ে সব্যসাচী দত্ত ও জ্যোতিপ্রিয় মল্লিকের পরস্পর বিরোধী মন্তব্য সেই বিতর্ককে আরও উসকে দেয়। তারপর তৃণমূলের তরফে তড়িঘড়ি বিধাননগরের কাউন্সিলরদের নিয়ে জরুরি বৈঠক ডাকা হয়েছিল।

ইতিমধ্যে জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক বলেন, “আজ সব্যসাচী দত্তের বিষয়টি নিয়ে বৈঠক ডাকা হয়েছে। সেখানে আমি ও ফিরহাদ হাকিম উপস্থিত থাকব। বিধাননগরের ৪১ জন কাউন্সিলরের মধ্যে আমাদের দলের ৩৯ জন কাউন্সিলর থাকবেন। সবার মতামত নেওয়া হবে। সব্যসাচী দত্তকে সরানো হতে পারে।” তাতে  সব্যসাচীর বিজেপি যোগের জল্পনার আঁচে আরও ঘি ঢালে। এদিন সব্যসাচীকে নিয়ে বৈঠক করার পর মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম বলেন, “দলে সন্দেহের পরিবেশ তৈরি করতে চাইছে। বিজেপি-র পরিকল্পনা সফল হবে না।”

বৈঠকের পর সাংবাদিকরা সব্যসাচীর কাছে জানতে চান সংবাদমাধ্যম কীভাবে সব্যসাচীর বাড়িতে এসেছিল? সে প্রসঙ্গে ঘুরিয়ে মুকুল রায়ের উপর দোষ চাপান সব্যসাচী। তিনি বলেন, “আমি সংবাদমাধ্যকে ডাকিনি। কে ডেকেছে আমি জানি না।”

কিন্তু, দলের চাপেই কি এখন এরকম কথা বলতে বাধ্য হচ্ছেন তিনি। সে প্রসঙ্গে সব্যসাচী বলেন, “সংবাদমাধ্যমের সামনেই বলছি দলের তরফ থেকে আমার উপর কোনও চাপ তৈরি করা হয়নি”।


শেয়ার করুন
  • 60
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment