কলকাতা 

শীর্ষ নেতৃত্বের হস্তক্ষেপেই জোটবদ্ধ হচ্ছে কংগ্রেস-সিপিএম ; রায়গঞ্জ -মুর্শিদাবাদ ছাড়তে নারাজ কংগ্রেস , জোটের পক্ষে সীতারাম-রাহুলের সমাধান সূত্র কী জানতে চান ? ক্লিক করুন

শেয়ার করুন
  • 49
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধি :  প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র প্রথম থেকেই বলে আসছিল জোট করেই লোকসভা নির্বাচনে লড়াই করতে হলে বামেদের সঙ্গে জোট করা উচিত । কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী প্রদেশ কংগ্রেসের এই দাবিকে মেনে নিয়েছিলেন । অন্যদিকে সিপিএম দলের কেন্দ্রীয় কমিটিও রাজ্যে কংগ্রেসের জোট করার অনুমতিও দিয়ে দিয়েছে । কিন্ত জোটের আলোচনাতেই ভেস্তে যায় । কংগ্রেসের দাবি তারা রায়গঞ্জ ও মুর্শিদাবাদ কেন্দ্র ছাড়বে না । আর সিপিএমের যুক্তি হল , এই দুটি আসনেই ২০১৪ লোকসভা নির্বাচনে তারা জয়ী হয়েছিল । সুতরাং তাদের জেতা আসন কোনোভাবেই হাতছাড়া করতে তারা রাজী নয়। এই দুটি আসনকে কেন্দ্র করেই রাজ্যে বামেদের সঙ্গে জোট ভেস্তে যেতে বসেছে।

কিন্ত গতকালই কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী সোমেন ও মান্নানকে দিল্লিতে জরুরি ভিত্তিতে ডেকে পাঠান । বুধবার দুপুরেই বৈঠক হয় । জানা গেছে জোটের সমস্যা কাটাতে নাকি সিপিএমের সাধারন সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি রাহুল গান্ধী বৈঠক করেন। সেখানে সীতারাম ইয়েচুরি দাবি করেন ওই দুটি আসনের বদলের অন্য কোনো জায়গা থেকে ভাল আসন তাদের দিতে হবে । তাতে নাকি রাহুল গান্ধী রাজি হয়েছেন। এদিকে রাজ্য সিপিএম নেতৃত্ব তাদের দুটি আসনের মধ্যে একটি আসন ছেড়ে দিতে রাজি হয়েছে জানা গেছে।

সব মিলিয়ে রাহুল গান্ধীর সঙ্গে সোমেন-মান্নানের বৈঠকে পরিস্কার হয়ে যাবে বামেদের সঙ্গে জোট হবে কিনা । তবে রাজনৈতিক মহলের অভিমত হল বামেদের সঙ্গে জোট কংগ্রেসের হচ্ছেই এটা নিয়ে কোনো সমস্যা হবে না । কারণ রাহুল গান্ধী চাইছেন বামেদের সঙ্গে জোট । আরও জানা গেছে সিপিএম নেতা লক্ষণ শেঠকে দলে নেওয়া বিষয়েও স্পষ্ট নির্দেশ দিতে পারেন রাহুল।

 


শেয়ার করুন
  • 49
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment