দেশ 

কেন পাকিস্তানের বন্ধুর সঙ্গে আলিঙ্গন মোদীর , ৪৯ জন শহীদের পরিবার তাদের আত্মত্যাগ নিয়ে কী ভাববে ? প্রশ্ন কংগ্রেসের

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : কেন সৌদি যুবরাজকে তিনি প্রোটেকল ভেঙে আলিঙ্গন করলেন, তা নিয়ে টুইটারে সরব হল কংগ্রেস। কংগ্রেসের কথায়, তিনি পাকিস্তানের বন্ধু, পাকিস্তানকে একরাশ সাহায্য করে এদেশে এসেছেন। তাঁকে আলিঙ্গন ভারতের শহিদ পরিবারে কী বার্তা দেবে, ভাবলেন না প্রধানমন্ত্রী।

পুলওয়ামা হামলার পর পাকিস্তান সফর করে ভারতে এসেছেন সৌদি যুবরাজ মহম্মদ বিন সলমন। ভারতে পা দিতেই প্রোটোকল ভেঙে বিমানবন্দরে স্বাগত জানাতে গিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তারপর বিমান থেকে নামতেই সলমনকে উষ্ণ আলিঙ্গন করেন মোদী। মোদীর এই ভূমিকার কঠোর সমালোচনা করেন বিরোধীরা।

কংগ্রেস টুইট করে জানায়, পাকিস্তানের বন্ধুকে কেন আলিঙ্গন করলেন প্রধানমন্ত্রী। তারপর তাঁকে রাষ্ট্রপতি ভবনে নিয়ে গিয়ে গার্ড অফ অনার দেওয়া হল। এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ ও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কংগ্রেসের দাবি, প্রোটোকল ভেঙে বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রী আলিঙ্গন করেছেন সৌদি যুবরাজকে।

কংগ্রেস জানায়, এমন একটা সময়ে এই ঘটনা ঘটানো হয়েছে, যখন পুলওয়ামায় পাক মদতপুষ্ট জঙ্গিদের দ্বারা হামলায় ৪৭ সেনা-জওয়ান শহিদ হয়েছেন। তারপর পাকিস্তানে গিয়ে কয়েকশো কোটি টাকা লগ্নির প্রতিশ্রুতি দিয়ে এলেন সৌদি যুবরাজ। সেই সফর শেষ করে তিনি ভারতে এসেছেন। এরপর ভারতের শহিদ জওয়ানের পরিবার ও সেনারা তাঁদের আত্মত্যাগ নিয়ে কী ভাববে, প্রশ্ন তোলে কংগ্রেস।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment