কলকাতা 

প্রশ্নপত্র সোস্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল ; অস্বস্তিতে ঢাকতে পর্ষদ সভাপতিকে তলব শিক্ষামন্ত্রীর ; একগুচ্ছ নয়া নির্দেশিকা জারি

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : মাধ্যমিক পরীক্ষার  শুরুর দিন থেকেই প্রশ্নপত্র সোস্যাল ভাইরাল হয়ে যাচ্ছে এতে সরকার রীতিমত চাপে পড়েছে । প্রথম দিন  বাংলার প্রশ্নপত্রের পর সোশ্যাল মিডিয়াতে আজ ভাইরাল হল মাধ্যমিকের ইংরেজি প্রশ্নপত্রও। এভাবে বারবার প্রশ্নপত্র ফাঁস হয়ে যাওয়ার ঘটনায় রীতিমত মুখ পুড়ছে সরকারের। অভিভাবকদের মধ্যেও ছড়াচ্ছে ক্ষোভ। ফলে অস্বস্তি ঢাকতে আজ পর্ষদ সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়কে তলব করেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়।‌

তড়িঘড়ি বিকাশ ভবনে যান পর্ষদ সভাপতি। শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের ঘরে বৈঠকে বসেন পর্ষদ সভাপতি। কীভাবে এবং কেন প্রশ্নপত্র এভাবে সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়ে যাচ্ছে সে বিষয়ে পর্ষদ সভাপতির কাছে শিক্ষামন্ত্রী কৈফিয়ত চেয়েছেন বলে জানা গেছে । এমনকি সেখানে নিজের ক্ষোভও উগরে দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ।

যদিও পরে সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টপাধ্যায় বলেন, মোবাইল নিয়ে আরও কড়া সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে শিক্ষা দফতর। এবার থেকে পরীক্ষা কেন্দ্রে মোবাইল নিয়ে ঢুকলে, সেই পরীক্ষার্থীকে আর পরীক্ষা দিতে দেওয়া হবে না বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী। এছাড়াও শিক্ষা মন্ত্রীর নির্দেশ ছাড়া আর সাংবাদিক সম্মেলন করতে পারবে না মধ্য শিক্ষা পর্ষদের সভাপতি। এছাড়াও আরও একগুচ্ছ নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। প্রসঙ্গত, আজ বুধবার মাধ্যমিকে ইংরেজি প্রশ্নের পরীক্ষা ছিল। দেখা যায় পরীক্ষা শুরুর কিছুক্ষণের মধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়ে গিয়েছে ইংরেজির প্রশ্নপত্র। একই ভাবে মঙ্গলবারও সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়ে যায় বাংলা বিভাগের প্রশ্ন। বারবার এভাবে সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রশ্নপত্র ভাইরাল হয়ে যাওয়াতে রীতিমত অস্বস্তিতে পড়ে রাজ্য সরকার।

 

 

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment